Saturday , 31 October 2020
আপডেট
Home » খেলাধুলা » আরচ্যারিতে পদক জিততে নতুন জার্মান কোচ ফ্রেডরিক মার্টিন
আরচ্যারিতে পদক জিততে নতুন জার্মান কোচ ফ্রেডরিক মার্টিন

আরচ্যারিতে পদক জিততে নতুন জার্মান কোচ ফ্রেডরিক মার্টিন

ক্রীড়া প্রতিবেদক : ২০২০ সালের টোকিও অলিম্পিক গেমসে আরচ্যারিতে পদক জিততে চায় বাংলাদেশ। এ লক্ষ্যে একটি দীর্ঘ মেয়াদী পরিকল্পনা নিয়ে এগোচ্ছে বাংলাদেশ আরচ্যারি ফেডারেশন। এই পরিকল্পনা বাস্তবায়নে ফেডারেশনকে আর্থিক সহযোগিতা দিচ্ছে সিটি গ্রুপের জনপ্রিয় ব্রান্ড ‘তীর’। উভয় পক্ষের মধ্যে চুক্তি অনুযায়ী ‘তীর গো ফর গোল্ড’ প্রজেক্টের আওতায় উদীয়মান এবং জাতীয় দলের আর্চারদের উন্নত প্রশিক্ষনের জন্য নিয়োগ দেয়া হয়েছে একজন হাইপ্রোফাইল কোচ।
জার্মান অধিবাসী কোচ ফ্রেডরীক মার্টিনের সঙ্গে সোমবার চুক্তি সম্পন্ন করেছে বাংলাদেশ আরচ্যারি ফেডারেশন। সেই সাথে আর্চারদের শারীরিক ও মানসিক ভাবে আরো দক্ষ করে তুলতে ফিজিও এবং মনোবিদও নিয়োগ দিচ্ছে ফেডারেশন। তৃণমূল থেকে প্রতিভা অন্বেষণ চলবে এই কোচদের তত্ত্বাবধানে।
আর্চারি অন্যান্য খেলার মতো খুব বেশি পরিচিত না হলেও সিটি গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় দীর্ঘ মেয়াদী পরিকল্পনায় ভালো কিছুর প্রত্যাশায় এগিয়ে যাচ্ছে আরচ্যারি ফেডারেশন। খেলোয়াড়দের শারীরিক সক্ষমতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে স্থাপন করা হয়েছে ফিটনেস সেন্টার। প্রতিযোগিতামূলক পরিবেশ সৃষ্টির লক্ষ্যে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে বিভিন্ন প্রতিযোগিতার আয়োজন এবং প্রতি বছর নির্দিষ্ট টার্গেট পূরণ করে পরবর্তী ধাপে এগিয়ে যাবে।
সিটি গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় ‘তীর গো ফর গোল্ড’ প্রোজেক্টের আওতায় নতুন এই কোচ নিয়োগ দেয়া হয়েছে। ১৯৬৮ সাালে বার্লিনে জন্ম নেয়া জার্মান কোচ ফ্রেডেরিক গত ছয় বছর কাজ করেছেন চিলির জাতীয় আরচ্যারি দলের কোচ হিসেবে। লিপজিগ স্পোর্টস ইউনিভার্সিটি থেকে কোচিংয়ে সার্টিফিকেট পাওয়া ফ্রেডরিক এরআগে জার্মানীর হেড কোচ, জুনিয়র দলের কোচ এবং বার্লিনের অলিম্পিক সেন্টারে দায়িত্ব পালন করেন । এরই মধ্যে গত ১৪ ফেব্রুয়ারি টঙ্গিস্থ আরচ্যারি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার স্টেডিয়ামে তিনি যোগ দিয়ে প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু করেছেন।
তবে নতুন কোচের সঙ্গে ফেডারেশনের আনুষ্ঠানিক চুক্তি সম্পাদিত হয়েছে । বাংলাদেশ অলিম্পিক এসোসিয়েশনের ডাচ-বাংলা ব্যাংক অডিটোরিয়ামে এক সংবাদ সম্মেলনে জার্মান কোচ ফ্রেডরীক মার্টিনের সঙ্গে ৫ বছরের জন্য চুক্তি সম্পাদন করে আরচ্যারি ফেডারেশন। তবে প্রতি বছর ডিসেম্বর মাসে চুক্তিটি নবায়ন করার বিধান রাখা হয়েছে।
চুক্তি সম্পাদন অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ আরচ্যারি ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক কাজী রাজীব উদ্দীন আহমেদ চপল, পৃষ্ঠপোষক সিটি গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক (মার্কেটিং এন্ড ফাইন্যান্স) শোয়েব মো. আসাদুজ্জামান এবং ফেডারেশনের সহ-সভাপতি এবং প্রশিক্ষণ ও উন্নয়ন কমিটির আহ্বায়ক মো. আনিসুর রহমান দিপু এসময় উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*