Monday , 1 March 2021
আপডেট
Home » গরম খবর » বিএনপি পাটশিল্পকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল: প্রধানমন্ত্রী
বিএনপি পাটশিল্পকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল: প্রধানমন্ত্রী

বিএনপি পাটশিল্পকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল: প্রধানমন্ত্রী

ডেস্ক রিপোর্ট: পাটশিল্পকে বিএনপি সরকার ধ্বংস করতে চেয়েছিল বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘বিএনপি সরকার ক্ষমতায় আসার পর দেশের পাটকলগুলো ক্রমান্বয়ে বন্ধ করে দেয়। ৯৬ সালে আমরা যখন ক্ষমতায় এলাম, বন্ধ পাটকলগুলো খুলে দিতে শুরু করলাম। এরপর ২০০১ সালে বিএনপি ক্ষমতায় এসে আদমজী জুটমিল বন্ধ করে দিয়েছিল। ২০০৮ সালে ক্ষমতায় আসার পর আমরা আবারও তা খুলে দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছি। মঙ্গলবার (৬ মার্চ) সকালে জাতীয় পাট দিবসের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে তিনি এ মন্তব্য করেন।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘পাটশিল্পর সঙ্গে দেশের অর্ধকোটি কৃষক জড়িত। পরিবেশবান্ধব এই পাটের চাহিদা কখনও শেষ হতে পারে না। আমরা পাটের ওপর গবেষণা করার ব্যবস্থা নিয়েছি। আজকে এই পাট গবেষণার ফলে অনেক ধরনের পাট পণ্য উৎপাদন হচ্ছে। আমরা বিদেশে পাট রফতানি করে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করছি। এই সম্পদকে যথাযথভাবে কাজে লাগিয়ে দ্রুত যেন দেশের উন্নতি হয়, সেই লক্ষ্যে কাজ করতে হবে।’
প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, ‘কৃষকরা যেন পাটচাষে মনোযোগী হন সেজন্য ব্যবস্থা নিতে হবে। পাট উৎপাদন, সংগ্রহ ও সংরক্ষণের ব্যবস্থা করে দিতে হবে। আমরা বন্ধ থাকা খুলনায় চারটি ও কিশোরগঞ্জের একটি পাটকল খুলে দেওয়ার ব্যবস্থা নিয়েছি । ’
শেখ হাসিনা বলেন, ‘পাটপণ্য উৎপাদনের জন্য যে যন্ত্রপাতি ব্যবহার হয় তা অত্যন্ত পুরনো । আমরা পাটপণ্য উৎপাদনের জন্য নতুন মেশিন ব্যবহার করার উদ্যোগ নিয়েছি। এছাড়া, পাটকলগুলোর তিন হাজার কোটি টাকার ব্যাংক ঋণ ছিল। আমরা তা মওকুফ করে দিয়েছি। সরকারের পক্ষ থেকে ব্যাংকের ঋণ শোধ করার ব্যবস্থা নিয়েছি। ’
প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা পাটের চাহিদা বাড়ানোর জন্য বিভিন্ন পণ্যের মোড়কে পাটজাত পণ্য বাধ্যতামূলক আইন ২০১০ করে দিয়েছে।’ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী তার পরনের শাড়ি, ব্যবহৃত জুতা ও সঙ্গে থাকা ব্যাগটি পাটের বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*