Saturday , 31 October 2020
আপডেট
Home » তথ্য ও প্রযুক্তি » ২০২১ সালের মধ্যেই দেশে ফাইভজি চালু হবে
২০২১ সালের মধ্যেই দেশে ফাইভজি চালু হবে

২০২১ সালের মধ্যেই দেশে ফাইভজি চালু হবে

আজকের প্রভাত প্রতিবেদক : ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশে ফাইভজি চালু করতে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটআরসি) এর কাছে আহ্বান জানিয়েছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। তিনি বলেন, এজন্য এখন থেকেই বিটিআরসির দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।
রবিবার দুপুরে বিটিআরসি আয়োজিত এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এই আহ্বান জানান মন্ত্রী মোস্তফা জব্বার। স্বল্পোন্নত দেশ হতে বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণে টেলিযোগাযোগ খাতের অবদান জানাতে এই সেমিনারের আয়োজন করা হয়।
তিনি বলেন, ২০২১ সালের ১৬ ডিসেম্বর আমরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষিত রূপকল্প ভিশন ২১ উদযাপন করবো। দেশের বিজয়ের সুবর্ণ জয়ন্তীর ওই দিনে আমরা দেশে ফাইভি জি নেটওয়ার্ক বাস্তবায়ন চাই।
ডাক, টেলিযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী আরো বলেন, প্রযুক্তিগত দিক থেকে ৩২৪ বছর পিছিয়ে ছিলাম আমরা। কিন্তু আমরা কেন আর পিছিয়ে থাকবো? ২০২০ সাল নাগাদ অনেকে দেশে ফাইভ জি চালু করা হবে। আমরা হয়তো ২০২০ সালে ফাইভ জি চালু করতে পারবো না, তাই বলে বছরের পর বছর অপেক্ষা করবো? বিটিআরসির চেয়ারম্যান এবং ডাক ও টেলিযোগাযোগ সচিবের কাছে আমি অনুরোধ করবো আমাদের দেশে ফাইভ জি নিয়ে পরীক্ষা নীরিক্ষা করার জন্য। এই জুন মাসের মধ্যেই আমাদের দেশে ফাইভ জির গতি পরীক্ষা করা হোক। তথ্যপ্রযুক্তিবিদ মোস্তাফা জব্বার বলেন , ২০২০ সালে যদি দুনিয়াতে ফাইভ জি চালু হয় তবে আমরা না হয় একটু পেছালাম। আমাদের জন্য একটা মাইল ফলক আছে ২০২১ সালের ১৬ ডিসেম্বর। এই মাইলফলক আমাদের ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তোলার মাইলফলক। ওই বছর ১৬ ডিসেম্বরের আগে আমরা কি পঞ্চম প্রজন্মের টেলিযোগাযোগের মধ্যে প্রবেশ করতে পারি না? আমি তো বিশ্বাস করি, আস্থাও রাখি। আমরা এই মাইলফলক অর্জন করতে সক্ষম হবো। আমরা যদি ২০২১ সালে দেশে ফাইভ জি চালু করতে পারে তবে সেটা হবে ডিজিটাল বাংলাদেশের বিশাল পদক্ষেপ।
সেমিনারে বিশেষ অতিথি ছিলেন, ডাক, টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব শ্যাম সুন্দর সিকদার, বিটিআরসি চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ। আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, টেলিযোগাযোগ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. জাহাঙ্গীর আলম, এনডিসি, বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. মোস্তফা আকবর এবং এমটবের মহাসচিব টি আই এম নুরুল কবির।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*