Saturday , 5 December 2020
আপডেট
Home » খেলাধুলা » বর্ণাঢ্য আয়োজনে কমন‌ওয়েলথ গেমসের উদ্বোধন
বর্ণাঢ্য আয়োজনে কমন‌ওয়েলথ গেমসের উদ্বোধন

বর্ণাঢ্য আয়োজনে কমন‌ওয়েলথ গেমসের উদ্বোধন

ক্রীড়া প্রতিবেদক : সুন্দর আয়োজন, খেলার আগেই পদক জয়, গেমস শুরুর আগে নাম প্রত্যাহার এবং যৌন নিপীড়নের অভিযোগ সত্ত্বে‌ও বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডের গোল্ডকোস্টে শুরু হয়েছে ২১তম কমন‌ওয়েলথ গেমস। গোল্ডকোস্টের কারারা স্টেডিয়ামে ১২ দিনের এ আসরের উদ্বোধন করেন প্রিন্স অব ওয়েলস প্রিন্স চার্লস। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের পতাকা বহন করেন ২০১৪ সালের কমনওয়েথ গেমসে বোঞ্জ জয়ী শ্যূটার আবদুল্লাহ হেল বাকী। দ্বিতীয় রাণী এলিজাবেথের উদ্বোধনী বার্তাবাহী কুইন্স বেটন নিয়ে উপস্থিত হন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অ্যাথলেট শুমি ও’নিল। সেই বার্তা পড়ে শোনানোর পর কমনওয়েলথ গেমসের উদ্বোধন ঘোষণা করেন প্রিন্স অব ওয়েলস প্রিন্স চার্লস। এরআগে পরিচিতি পর্বে অংশ নেন ৭১টি দেশের খেলোয়াড়রা। দু’শ ৭৫টি স্বর্ণ পদকের লড়াইয়ে সাড়ে চার হাজার অ্যাথলেট অংশ নিচ্ছেন এবারের গেমসে।
অ্যাথলেটিকস, ভারোত্তলন, সাঁতার, শুটিং এবং কুস্তিসহ মোট ছয়টি ইভেন্টে অংশ নেবেন বাংলাদেশের ২৬ জন অ্যাথলেট। ১৯৯০ সাল থেকে নিয়মিতই কমনওয়েলথ গেমসে অংশ নিচ্ছে লাল-সবুজের পতাকাবাহীরা। এতোকিছুর মাঝে‌ও যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মৌরিতাস অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশেনর উপ-মহাসচিবকে দেশে ফিরিয়ে নেয়া হয়েছে। সেদেশের নারী জ্যাভলিন থ্রোয়ারকে নিপীড়নের অভিযোগ ‌ওঠে তার বিরুদ্ধে। স্বাগতিক দেশ অস্ট্রেলিয়া দলের আগমনে আতশবাজী আর দর্শকদের করতালিতে মূখর হয়ে ওঠে কারারা স্টেডিয়াম। কমনওয়েথ গেমসে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে সফল দেশ অস্ট্রেলিয়া। ঐতিহ্যবাহী স্মোকিং অনুষ্ঠানটি ছিলো বেশ মনমুগ্ধকর। এছাড়াও অস্ট্রেলিয়ার বিভিন্ন ইতিহাস ও ঐতিহ্য তুলে ধরা হয় উদ্বোধনী আয়োজনে।
এরপর শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন গোল্ড কোস্ট কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান পিটার বিয়েট্টি। এরপর কমনওয়েলথ গেমসের পতাকা উড়িয়ে শেষ হয় জমকালো উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। রাতের অন্ধকারে কুইন্সল্যান্ডের আকাশ তখন রঙ্গিন হয়ে ওঠে অসাধারণ লেজার শো এবং আতশবাজীর প্রদর্শনীতে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*