Saturday , 8 May 2021
আপডেট
Home » জাতীয় » জবাবদিহিতা না থাকায় ডেঙ্গু নিয়ে কার্যকর ব্যবস্থা নিচ্ছে না সরকার: রিজভী
জবাবদিহিতা না থাকায় ডেঙ্গু নিয়ে কার্যকর ব্যবস্থা নিচ্ছে না সরকার: রিজভী
ডেঙ্গু প্রতিরোধে জনসচেতনতামূলক র‌্যালিতে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী

জবাবদিহিতা না থাকায় ডেঙ্গু নিয়ে কার্যকর ব্যবস্থা নিচ্ছে না সরকার: রিজভী

ডেস্ক রিপোর্ট: বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে প্রতিদিন বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন এবং এদের মধ্যে কারো কারো প্রাণহানিও ঘটছে। অথচ এই সংকট মোকাবেলায় জন-বিদ্বেষী সরকার যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করছে না।’ বৃহস্পতিবার বেলা ১২টায় রাজধানীর মহাখালীস্থ ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির সামনে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির উদ্যোগে ডেঙ্গু প্রতিরোধে এক জনসচেতনতামূলক র‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়। র‌্যালিতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রিজভী এ মন্তব্য করেন। র‌্যালি অনুষ্ঠানে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির সিনিয়র নেতারাসহ বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
তিনি বলেন, ‘ডেঙ্গু আতঙ্কে রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশের মানুষের মধ্যে এখন চরম আতঙ্ক বিরাজ করছে। প্রতিদিনই অসংখ্য মানুষ ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন এবং এদের মধ্যে কারো কারো প্রাণহানিও ঘটছে অথচ এই সংকট মোকাবেলায় জন-বিদ্বেষী সরকার যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করছে না। ভয়াবহ দুঃশাসনে জর্জরিত মানুষের ভোট চুরি করে ক্ষমতাসীন হওয়ার জন্য জনগণ বর্তমান সরকারকে ঘৃণা করে বলেই সরকার জনগণকে শত্রু বলে মনে করে।’
রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘জনগণের নিকট সরকারের কোনও জবাবদিহিতা নেই এবং রাষ্ট্রক্ষমতার জন্য বর্তমান শাসকগোষ্ঠী জনগণকে প্রয়োজন মনে করে না। সেজন্য দেশের যেকোনও প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় অবহেলা ও অবজ্ঞা করে থাকে। ডেঙ্গু সমস্যার মতো এত বড় জাতীয় সংকটে সরকারের কোন দায়বদ্ধতা নেই বলেই প্রধানমন্ত্রী এবং স্বাস্থ্যমন্ত্রী বিদেশে।’
আওয়ামী সরকারের রাজনীতি জনকল্যাণমুখী নয়ই মন্তব্য করে রিজভী বলেন, ‘জনগণকে চরম দুর্ভোগের মধ্যে ফেলাই এদের রাজনীতির লক্ষ্য। তাই প্রাকৃতিক দুর্যোগে আওয়ামী মন্ত্রী-নেতাদের বাগাড়ম্বর বক্তব্য প্রদান ছাড়া সমস্যা সমাধানে কোন কার্যকর উদ্যোগ গ্রহণ করে না। কিন্তু বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি শুধু মিটিং-মিছিলের রাজনীতি করে না, বিএনপি নেতাকর্মীরা ঝড়-জলোচ্ছ্বাস-বন্যাসহ সংক্রামক ব্যাধিজনিত মহামারী মোকাবেলা করতেও জনগণের পাশে থাকে।’
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসন ও চারবারের প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে মিথ্যা ও সাজানো মামলায় সরকার তাঁকে অন্যায়ভাবে কারারুদ্ধ করে রেখেছে। বুধবার গোটা দেশবাসী অধীর ও ব্যাকুল হয়ে সর্বোচ্চ আদালতের দিকে তাকিয়ে ছিল, সবাই আশা করেছিল জুলুম ও অন্যায়ের প্রতিকার শেষ আশ্রয়স্থল উচ্চতর আদালত সরকারের নির্জলা সাজানো মিথ্যা মামলায় কারারুদ্ধ দেশনেত্রীকে জামিন দিবেন। কিন্তু গোটা দেশবাসীকে হতাশ করে ৭৪ বছর বয়সী চরম অসুস্থ সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ করে দেওয়া হয়েছে।এই রায় নিয়ে দেশের জনগণের সঙ্গে আমরাও হতাশ ও উদ্বিগ্ন। জাতীয়তাবাদী শক্তি জনগণকে সঙ্গে নিয়ে বেগম খালেদা জিয়ার কারামুক্তি লাভে রাজপথে নামার জন্য জোর প্রস্তুতি নিচ্ছে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*